* “লাল নীল সবুজের মেলা বসেছে
লাল নীল সবুজের মেলা রে ।
আয় আয় আয় রে ছুটে খেলবি যদি আয়
নতুন সে এক খেলা রে।।”*

কয়েক বছর আগে স্কুলের বন্ধুদের সাথে একবার শান্তিনিকেতন বেড়াতে গিয়েছিলাম। বলতেই হয় বেশ মনোরম ও নিরিবিলি স্থান । বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের নিজের হাতে তৈরি বিশ্বভারতীও বেড়াতে গিয়েছিলাম , চারদিকে সবুজ গাছ গাছালিতে ভর্তি , বলতে গেলে একেবারে অসাধারণ জায়গা। কদিন আগে এসব ভাবতে ভাবতেই মাথায় একটা ব্যপার খেলে গেল , গাছের পাতার রঙ কি সত্যিই সবুজ ?

আজকের এই রহস্য আমরা পদার্থবিজ্ঞানী হিসাবে ভেদ করার চেষ্টা করব , জীববিজ্ঞানী হিসাবে নয়। প্রথমে আমাদের আলো সম্পর্কে সম্যক ধারনা থাকা প্রয়োজন , যাতে করে আমরা বুঝতে পারি কেন কোনো বস্তুর রঙ আমরা দেখি… আলো হচ্ছে একধরনের শক্তি যার মধ্যে কণা ধর্ম ও তরঙ্গ ধর্ম উভয়েই বর্তমান। আলোর শূন্যমাধ্যমে গতিবেগ প্রায় ৩x১০ এর জন্য সূর্য থেকে পৃথিবীতে আলো আসতে সময় লাগে প্রায় ৮ মিনিট। আবার তোমরা হয়তো অনেকেই জানো সূর্যের সাদা আলো হচ্ছে আসলে সাতটি রঙের আলোর মিশ্রণ যেগুলি হল যথাক্রমে বেগুনি, নীল, আকাশী, সবুজ, হলুদ, কমলা ও লাল এগুলি সব রামধনুর রঙ । সাধারণত আমরা এই রঙগুলি বুঝতে পারি না কিন্তু যদি প্রিজমের ওপর এই সাদা আলো ফেলি তাহলে আলো সাতটি রঙের আলোতে বিভাজিত হয়ে যায়।

এবার যখন সাদা আলো কোন বস্তুতে পড়ে তখন বস্তুটি বিভিন্ন রঙকে শোষণ করে এবং এক বা একাধিক রঙের আলোকে প্রতিফলিত করে ।উদাহরণস্বরূপ, আমরা সবাই গাছের পাতা দেখেছি , গাছের পাতার রঙ সাধারণত সবুজ হয়, অর্থাৎ আগের আলোচনা থেকে বুঝতে পারি যে গাছের পাতা শুধু সবুজ রঙের আলোকে প্রতিফলিত করে , যা আমাদের চোখে এসে পড়ে এবং এজন্য গাছের পাতাকে আমরা সবুজ দেখি। গাছের পাতা সবুজ সবুজ রঙ বাদে সব ৬ রঙেই শোষণ করে নেয়, এবং শুধুমাত্র সবুজ রঙকেই শোষণ করতে পারে না তাই প্রতিফলিত করে দেয়।

এবার যদি আমরা একটু গভীরভাবে ভেবে দেখি তাহলে বুঝতে পারব যে , যেহেতু গাছের পাতা সবুজ বাদে বাকি সব রঙের আলোই শোষণ করে নেয় এবার শোষিত হওয়া পাঁচটি রঙের আলো যথাক্রমে বেগুনি , নীল , আকাশী , হলুদ , কমলা , লাল মিলে একটি কালচে রঙের সৃষ্টি করবে , যা হবে পাতার আসল রঙ।

তবে আমাদের মনে রাখতে হবে , কোন বস্তুর কি রঙ হবে তা নির্ভর করে আমাদের চোখ ও মস্তিস্ক কিভাবে রঙকে প্রক্রিয়াকরন করে। আমাদের মস্তিষ্ক সেই রঙকেই বস্তুর রঙ মনে করে যে রঙের আলো সেই বস্তু দ্বারা প্রতিফলিত হয়। যদি আমাদেরর চোখ ও মস্তিষ্ক রঙকে অন্যভাবে প্রক্রিয়াকরণ করত তাহলে হয়তো আমরা গাছের পাতাকে কালচে রঙেই দেখতাম।